মাদরাসাতুল মারওয়ায় সবক প্রদান অনুষ্ঠান।

بِسْمِ اللَّهِ الرَّحْمٰنِ الرَّحِيمِ
বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহীম
পরম করুণাময় ও অসীম দয়ালু আল্লাহ্‌র নামে শুরু করছি





আজ ৭ সেপ্টেম্বর শনিবার বিকাল ৪ টায় মিরপুরস্থ মারওয়াহ মিলনায়তনে নতুন ছাত্রদের সবক প্রদান উপলক্ষে এক মনোমুগ্ধকর অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অত্র মাদরাসার ছাত্র হাফেজ আব্দুর রহমান এর কোরআন তিলাওয়াত, আবিদুর রহমান আবির ও আনসারুল্লাহ সিদ্দীকি তাসনীম’র সংগীত পরিবেশন এর মাধ্যমে সবক প্রদান অনুষ্ঠানটি শুরু হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন গুলশান সোসাইটি জামে মসজিদের সম্মানিত খতিব, মারকাযু ফয়জিল কোরআন’র প্রতিষ্ঠাতা ও প্রিন্সিপাল, শ্রদ্ধাভাজন ব্যক্তিত্ব মুফতী মুরতাজা হাসান ফয়েজী মাসুম।

বিশেষ অতিথী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পাটমন্ত্রনালয়ের সম্মানিত কর্মকতা সৈয়দ আব্দুল্লাহ মু.জাকারিয়া। আমন্ত্রিত অতিথী হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দারুস সুন্নাহ মিরপুর এর প্রতিষ্ঠাতা ও মুহতামীম হাফেজ মাও.ক্বারী মাহমুদুল আরিফীন।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন মাদরাসাতুল মারওয়াহ’র ভাইস প্রিন্সিপাল হাফেজ মাও.আবুবকর বিন রাশেদ। হাফেজ মাও.সৈয়দ আল হাসান। হাফেজ মাও.এমদাদ সাদী। মু.নাইমুল ইসলাম প্রমুখ।

মাদরাসার প্রতিষ্ঠাতা ও মুহতামীম হাফেজ মাও.মাঈনুদ্দীন ওয়াদুদ’র সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথীর বক্তব্যে মুফতী মুরতাজা সাহেব ছাত্রদের উদ্দেশ্যে বলেন; নিজের মধ্যে বিনয় আসার জন্য উস্তাদদের বেশি বেশি খেদমত করতে হবে।

উস্তাদদের উদ্দেশ্যে বলেন; ছাত্ররা আপনাদের কাছে আমানত, এই আমানতে খেয়ানত করলে জবাব দিতে হবে মাওলার কাছে।

অভিভাবকদের উদ্দেশ্যে বলেন; আপনারা সন্তানদেরকে একটি পবিত্র গোনাহমুক্ত ঘর দিন তাহলে মাদরাসা কতৃপক্ষ আপনাদেরকে একটি পবিত্র এবং চক্ষুশীতলকারী সন্তান উপহার দিবে।

সবক প্রদান শেষে ৫.৩০ মিনিটে প্রধান অতিথীর দুআর মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সমাপ্তি ঘটে।














আপনিও হোন ইসলামের প্রচারক ইন শা আল্লাহ ’ লেখাটি শেয়ার করুন বন্ধুদের সাথে!

Post a Comment

0 Comments